1. admin@banglatimesbd.com : admin :
'গরীব মারার' বাজেট প্রস্তাবনা প্রত্যখ্যান সিপিবির - বাংলা টাইমস বিডি
বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:২৩ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
প্রধান খবর
পরীমনিকে সাহসী বললেন নচিকেতা কেনো সিএমসি হাসপাতালে এত ভিড়? সাহারা খাতুনের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত পরীমনির ইস্যুতে আমরা বাড়াবাড়ি করছি না তো! ১৪ বছর পর ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা’র ফাইনাল খেলা ৭৫-এর পর একমাত্র রাজনৈতিক নেতা শেখ হাসিনা: এস এম কামাল ঢাকা-১৪ আসন উপনির্বাচনের জন্য দলীয় ফরম নিলেন তুহিন শুধু মিছিল সমাবেশ নয়, জনসচেতনতা সৃষ্টিও রাজনৈতিক দলের দায়িত্ব: বাহাউদ্দিন নাছিম বিশেষ কেবিনে স্থানান্তর হলেও এখনো ঝুঁকিমাক্ত নন খালেদা জিয়া এরশাদের মৃত্যুবার্ষিকীতে ভোট গ্রহণ না দিতে জিএম কাদেরের আহবান ‘গরীব মারার’ বাজেট প্রস্তাবনা প্রত্যখ্যান সিপিবির প্রস্তবিত বাজেট স্বাগত জানিয়ে কৃষক লীগের আনন্দমিছিল পুর্বধলায় মাদকাস্কক্ত এরশাদের বিরুদ্ধে এলাকাবাসীর অভিযোগ জামিন পেলেন রোজিনা, মামলা থেকে মুক্তির দাবী সংসার ভাঙলো চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির টিকার দ্বিতীয় ডোজ চার মাস পরে নিলেও চলবে? যুদ্ধবিরতীতে হামাস-ইসরায়েল, স্বাগত জানালো বাইডেন রোজিনা ইসলামকে ঘষেটি বেগমের সাথে তুলনা রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীর সাংবাদিক রোজিনার সাথে যে বর্বরতা হয়েছে তা ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ : জিএম কাদের পল্লবীতে ছেলের সামনে বাবাকে খুন : সাবেক এমপি আউয়াল গ্রেপ্তার সানি-মৌসুমীর ছেলের বার থেকে গ্রেপ্তারকৃত ৩ জন রিমান্ডে সাংবাদিক রোজিনা ইস্যুতে সরব হলেন ব্যারিস্টার সুমন সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের জন্য ক্ষুব্ধ আওয়ামী লীগ কাঁদলেন রোজিনার সহকর্মী সাহিত্যিক আনিসুল হক আমিও অপরাধী, স্বেচ্ছায় কারাবরণ করতে চাই ‘নির্বাচন কমিশন না থাকলে ৩০টি আসনও পেত না বিজেপি’ নিজ নিজ ঘরে থেকেই সবাই ইবাদত করুন : জিএম কাদের ‘তুমি মোর পাও নাই পরিচয়’ একদিনে মৃত্যুর সর্বোচ্চ রেকর্ড ভারতে আজই লন্ডন নেওয়া হতে পারে খালেদা জিয়াকে ‘বিপদে আ.লীগই মানুষের পাশে দাঁড়ায়’ সকালে ঘুম থেকে উঠে যা করবেন এবং করবেন না কী কী ঘটনা আছে বিল গেটসের? দরিদ্রদের মাঝে মাঝে ঈদ উপহার দিচ্ছেন রিপন সদরঘাটে পাঁচ শতাধিক মানুষের মাঝে যুবলীগের খাবার বিতরণ
add

‘গরীব মারার’ বাজেট প্রস্তাবনা প্রত্যখ্যান সিপিবির

  • বৃহস্পতিবার, ৩ জুন, ২০২১
  • ১৫৪ বার পড়া হয়েছে
বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির লোগো। ছবি: সংগৃহীত।


নিজস্ব প্রতিবেদক
বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক মোহম্মদ শাহ আলম জাতীয় সংসদে উত্থাপিত বাজেট প্রস্তাবকে ৯৯% মানুষের স্বার্থবিরোধী, গতানুগতিক, আমলাতান্ত্রিক আখ্যায়িত করেছেন। গতকাল বাজেট ঘোষণার পর এক বিবৃতিতে এই মন্তব্য করেন। করোনা মহাবিপর্যয়কালে পীড়িত মানুষকে বাঁচানোর জন্য স্বাস্থ্য খাতের প্রাধান্য পাওয়া উচিত হলেও প্রকৃত অর্থে তা করা হয়নি। করোনা বিপর্যয় মোকাবেলার পাশাপাশি করোনার কারণে সৃষ্ট জনজীবনের সংকট কাটিয়ে ওঠার লক্ষ্য নির্ধারণে এই বাজেটে ব্যর্থ হয়েছে। এই বাজেটে ৯৯% সাধারণ মানুষের জীবন-জীবিকা-রুটি-রুজি-সহায়-সম্পদ লুটপাট করে মুষ্ঠিমেয় ১% লুটেরা ধনীকদের স্বার্থ রক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে। বাজেটকে সাম্রাজ্যবাদ ও লুটেরা ধনিক শ্রেণির স্বার্থ রক্ষার গণবিরোধী দলিল আখ্যায়িত করে সিপিবির পক্ষে তা প্রত্যাখান করেন।
নেতৃবৃন্দ বলেন, অত্যন্ত পরিতাপের বিষয় হলো সরকার সিপিবিসহ বিভিন্ন প্রগতিশীল শক্তির বাজেট সংক্রান্ত সুনির্দিষ্ট সুপারিশ এবং দেশের আপামর মানুষের আকাঙ্খাকে পদদলিত করে আমলাতন্ত্রের সাজানো গতানুগতিক বাজেট ঘোষণা করেছে। প্রস্তাবিত রাজস্ব আয়ে পরোক্ষ কর প্রত্যক্ষ করের দ্বিগুণ নির্ধারণ করা হয়েছে। আর এই দুঃসহ ভারের সবটাই বহন করতে হবে গরিব-মধ্যবিত্তসহ সাধারণ নাগরিকদেরকে। অথচ বিত্তবানদের উপর ধার্য্য প্রত্যক্ষ কর রেয়াত অব্যাহত রাখা হয়েছে। অপ্রদর্শিত কালো টাকা বৈধ করার সুযোগ রাখা হয়েছে। করোনাকালে প্রদত্ত প্রণোদনার প্রায় পুরোটাই ধনিকশ্রেণির জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছে। বাজেট বরাদ্দের অন্যান্য ক্ষেত্রেও সিংহভাগ বিত্তবানদের স্বার্থে ব্যয় করার প্রস্তাব করা হয়েছে। বাজেটে এভাবে গরিব জনগণের সম্পদ মুষ্ঠিমেয় লুটেরা ধনিকের হাতে প্রবাহিত করার প্রস্তাব করা হয়েছে।
নেতৃবৃন্দ বলেন, এবারের বাজেটে ঘাটতির পরিমাণ ২ লাখ ১৪ হাজার ৬৮১ কোটি টাকা। আগে ঘাটতি জিডিপির ৫ শতাংশে মধ্যে ধরে রাখার চেষ্টা করা হলেও এবার সেটা ৬ শতাংশের বেশি হবে, যা উদ্বেগজনক। এই বিপুল পরিমাণ বাজেট ঘাটতি মেটানোর জন্য নতুন করে অভ্যন্তরীণ খাত ও বৈদেশিক উৎস থেকে ঋণ গ্রহণ করে ভবিষ্যত প্রজন্মের কাঁধে বিশাল ঋণের বোঝা চাপিয়ে দিয়ে বাজেটের পরিমাণকে ৬ লাখ ৩ হাজার ৬৮১ কোটি টাকা করা হয়েছে। প্রতিবছর যেমন অতীতের চেয়ে বাজেট ব্যয় সর্বোচ্চ হয় তেমনি ঘাটতিও হয় সর্বোচ্চ। এবারো তাই হয়েছে। বাজেটের বেশির ভাগ খরচ হবে পূর্বের ঋণ পরিশোধ, শ্বেতহস্তির মতো বিশাল সিভিল-মিলিটারি প্রশাসন পরিচালনা ব্যয়, বিলাস দ্রব্য আমদানি, অপচয়, দুর্নীতিসহ বিভিন্ন প্রকারের সিস্টেম লস, কর-রেয়াতের নামে ধনিক শ্রেণিকে বিশাল ভর্তুকি প্রদান ইত্যাদি কাজে। এসবই হলো লুটেরা ধনিক শ্রেণির স্বার্থে গৃহীত পদক্ষেপ।
নেতৃবৃন্দ বলেন, করোনাকালে নতুন করে আড়াই কোটি লোক দারিদ্রসীমার নীচে নেমে গেছে। কাজ হারানো ও নতুন সৃষ্ট বেকারদের কর্মসংস্থানের নির্দিষ্ট কোন রুপরেখা এ বাজেটে নেই। করোনাকালে প্রণীত এ বাজেটে স্বাস্থ্যখাতে সর্বোচ্চ প্রাধান্য দেয়ার কথা বলা হলেও বাস্তবে তার কোন লক্ষণ এ বাজেটে নেই। এ বাজেটে এবারো কালো টাকা সাদা করার সুযোগ অব্যাহত রাখার মাধ্যমে অর্থনীতিতে লুটপাটের ধারা আরো জোরদার করার ব্যবস্থা করা হয়েছে।
নেতৃবৃন্দ বলেন, উত্থাপিত বাজেট ”জীবন-জীবিকা” রক্ষার স্লোগান দেয়া হলেও তা বাস্তবে উপেক্ষিত হয়েছে। এ বাজেটে সংখ্যাগরিষ্ঠ গরীব মানুষকে রক্ষার কোন বাস্তব দিকনির্দেশনা নেই। এ বাজেট প্রকৃত অর্থেই ”গরীব মারার বাজেট।” নেতৃবৃন্দ বাজেট প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে তা প্রত্যাহার করে চলমান করোনাকালীন কঠোর বাস্তবতার আলোকে স্বাস্থ্য-শিক্ষা-কৃষি-কর্মসংস্থানকে প্রাধান্য দিয়ে এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় এবং সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষের স্বার্থে সমাজতন্ত্র অভিমুখিন বাজেট প্রণয়নের জন্য সরকারের কাছে জোর দাবি জানান।

#

add

ভালো লাগলে এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ten − eight =

এই কেটাগরির আরো খবর

বাংলাদেশে কোরোনা

সর্বশেষ (গত ২৪ ঘন্টার রিপোর্ট)
আক্রান্ত
মৃত্যু
সুস্থ
পরীক্ষা
সর্বমোট

©banglatimes24 2020 All rights reserved, Design & Developed By:

Theme Customized By BreakingNews